Search

আপনার PPE সম্পর্কে জানুন! আসলেই PPE, নাকি হুডি জ্যাকেট!

Updated: Jun 3, 2020

পারসোনাল প্রোটেকটিভ ইকুইপমেন্ট বা PPE কথাটা কমবেশি আমরা সকলেই শুনছি এখন। কারন আমাদের দেশে করোনাভাইরাস আশার পূর্বে PPE নিয়ে আলোচনা নয় সমালোচনা শুরু হয়েছে, অদ্যবধি এখন পর্যন্ত থেমে নেই।

কোভিড-১৯ যখন চীনের উহান থেকে একটি-দুটি করে বিশ্বের অন্যান্য দেশেও ছড়াতে শুরু করলো, তখন বিষয়টি আমাদের কাছে মোটামুটি পরিষ্কার ছিল যে, চিকিৎসকদের সুরক্ষায় মান সম্পন্ন PPE সংকট প্রকট হবে।


আমাদের দেশের PPE এর অবস্থাঃ

কিছুদিন ধরে আমরা খবর এ দেখছি কোভীড -১৯ মহামারীর বিপর্যয় ঠেকাতে যারা মুল যোদ্ধা হিসেবে কাজ করছেন সেই চিকিৎসকগণ একের পর এক আক্রান্ত হচ্ছেন। চিকিৎসকদের করনাভাইরাসে আক্রান্তের যে হার সেটি সত্যিই আমাদের দেশের প্রেক্ষাপটে একটি বড় দুশ্চিন্তার বিষয়।

এটির কারন হিসেবে অনেকেই মানহীন PPE কে দায়ী করেছেন।

কিন্তু আমার কাছে সবচেয়ে বড় কারন মনে হয়েছে PPE বিষয়ে অজ্ঞতা।

এখন ঢাকার অলি-গলির গার্মেন্টস থেকে শুরু করে নিউমার্কেটের দরজীতেও নাকী PPE গাউন তৈরী হয়।

আবার কারওয়ান বাজার এলাকায় এখন ফুটপাত বা ভ্যানেও PPE পাওয়া যায়।

তাই প্রথমত, PPE যারা তৈরী করছেন তাদের উচিত টেক্সটাইল ম্যাটারীয়াল সায়েন্স নিয়ে একটু পডাশোনা করে নেয়া, যাতে PPE গাউন ফেব্রিকের ফাইবার প্রোপার্টিস কী হওয়া উচিত, কী ধরনের এপ্লাইড ফিনিশিং ব্যবহার করতে হবে তা সম্পর্কে একটা আইডিয়া পেয়ে যাবেন।

দ্বিতিয়ত আমাদের স্বাস্থ্য বিভাগে যারা ক্রয়াদেশ দিচ্ছেন, তাদের জন্য PPE এর ক্যাটাগরী ও সেই সংশ্লিষ্ট টেস্ট সম্পর্কে যেমন ধারণা রাখা উচিত, তেমনি ক্যাটাগরী অনুযায়ী যে ব্যবহারবিধি রয়েছে সেগুলোও অনুসরন করা অনেক জরুরী।

বিশ্বের বিভিন্ন দেশে PPE ব্যবহারের ক্ষেত্রে তারা তাদের নীজস্ব মানদন্ড অনুসরণ করে থাকে। আমাদের দেশে সরকারী টেস্টিং ইন্সটিটিউট (BSTI) এ আমি খোঁজ নিয়েছি, কিন্ত এধরনের কোন টেস্টের সুযোগ অনেক দূরে, আশা করি সংশ্লিষ্ট কতৃর্পক্ষ খুব শীঘ্রই পদক্ষেপ নিবেন।


আমাদের প্রচেষ্টাঃ

আমরা প্রথমে শুধুমাত্র PPE-গাউন নিয়ে কাজ শুরু করি।

বলে রাখা ভালো, PPE-গাউন ব্যাতীত PPE এর অন্যান্য ইকুইপমেন্ট যেমন মাস্ক, গ্লোভস বা গোগোলস ইত্যাদি বিষয়ে আমাদের কারিগরি জ্ঞান তেমন না থাকায় আামরা আর সেই জিনিস গুলো নিয়ে কাজ করার সাহস করতে পারি নি।

PPE-গাউন তৈরীর জন্য আমরা প্রথমে স্যাম্পল ডেভেলপ করে প্রথম সারির একটি টেস্টিং কোম্পানিতে (কোম্পানিটি একটি ব্রিটিশ টেস্টিং কোম্পানি, যাদের একটা শাখা আছে বাংলাদেশে) পাঠাই। প্রথম টেস্ট রিপোর্ট টি আশানুরুপ না হলেও আমাদের তৈরি স্যাম্পলটি লেভেল-২ পাশ করে, এবং অনেকটা লেভেল-৩ এর কাছাকাছি একটা মানে পৌছায়।

দ্বিতীয় ধাপে আমরা পুনরায় আরো একটি স্যাম্পল তৈরি করি এবং টেস্ট করাই, আলহামদুলিল্লাহ এবার আমরা লেভেল-৩ অর্জন করতে সক্ষম হই। লেভেল-৪ এর টেস্ট সুবিধা বাংলাদেশে না থাকায় ইতিমধ্যে আমরা একটি স্যাম্পল দেশের বাইরে পাঠিয়েছি, আশা করছি আমাদের VPW-G02 মডেলের গাউনটি লেভেল -৪ অর্জন করতে সক্ষম হবে ইনশাল্লাহ ।


আদর্শ এবং মানসম্পন্ন PPE:

আমরা VPW-G01 এবং VPW-G02 মডেলের যে দুইটি গাউন তৈরি করেছি, সেগুলোর ক্ষেত্রে American National Standards Institute (ANSI) এবং the Association of the Advancement of Medical Instrumentation (AAMI) প্রদত্ত নীতি অনুসরন করেছি।

সচেতনতার স্বার্থে AAMI প্রদত্ত মানদন্ডটি ক্যাটাগরি অনুযায়ী আলোচনা করা হল,


লেভেল-১ঃ এটি সবচেয়ে কম ঝুঁকিপূর্ণ হাসপাতাল এর প্রাথমিক কেয়ার ইউনিট গুলোতে ব্যাবহার করা হয়ে থাকে।

এই লেভেল এর গাউন যে প্রটেকশন দেয় সেটি খুবই কম এবং শুধুমাত্র লিমিটেড পরিমাণ তরলের ক্ষেত্রে।


টেস্ট পদ্ধতিঃ এই গাউন এর কাপড় "spray impact penitration" নামে একধরণের টেস্ট করা হয়।


লেভেল-১ VISTUBA গাউন মডেলঃ VPW-G01 এবং VPW-G02।


লেভেল-২ঃ অপেক্ষাকৃত কম ঝুঁকিপূর্ণ পরিস্থিতি, যেমন শিরা থেকে রক্তের নমুনা সংগ্রহ (Blood draw from a vein), ক্ষতস্থান-সেলাই (Suturing), নিবিড় পরিচর্যা কেন্দ্র (Intensive care unit), প্যাথলজি ল্যাব (Pathology Lab) এর মত জায়গায় এই গাউন ব্যাবহার করতে পারেন।

বেশি পরিমাণ তরল এর ক্ষেত্রে বাঁধা তৈরি করতে সক্ষম এই লেভেল এর গাউন।


টেস্ট পদ্ধতিঃ এই গাউন এর কাপড় এ দুই ধরণের টেস্ট করা হয়, তার একটি হচ্ছে লেভেল-১ এর "spray impact penitration" অন্যটি "hydrostatic head test"। "spray impact penitration" এর ক্ষেত্রে এখানে ডিম্যান্ড বেশি থাকে।


লেভেল-২ VISTUBA গাউন মডেলঃVPW-G02 & VPW-G03P।


লেভেল-৩ঃ মোটামুটি ঝুঁকি আছে এমন পরিস্থিতি যেমন ধমনী থেকে রক্তের নমুনা সংগ্রহ ( Arterial blood draw), IV প্রবেশ করানো (Inserting an  IV), জরুরী বিভাগ সহ আরো কিছু ঝুঁকিপূর্ণ বিভাগে এই লেভেল এর গাউন ব্যাবহার করা যায়।


বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা (WHO) করোনাভাইরাস মোকাবেলায় চিকিৎসকদের লেভেল-৩ অথবা লেভেল-৪ মানের গাউন ব্যাবহার করার পরামর্শ দিয়েছে।


টেস্ট পদ্ধতিঃ এই গাউন এর কাপড় এর ক্ষেত্রেও লেভেল-২ এ উল্লেখিত দুইটি টেস্ট "spray impact penitration" ও "hydrostatic head test" করা হয়। কিন্তু লেভেল-৩ পাশ করতে "হাইড্রোস্টেটিক হেড টেস্ট" এর ডিম্যান্ড অনেক বেশি থাকে।


লেভেল-৩ VISTUBA গাউন মডেলঃ VPW-G03B।


লেভেল-৪ঃ উচ্চ ঝুঁকি আছে এমন কাজে চিকিৎসকগণ এই PPE-গাউন পরে থাকেন।


টেস্ট পদ্ধতিঃ লেভেল-১, লেভেল-২ এবং লেভেল-৩ এর টেস্ট এর সাথে আরো জটিল দুইটি টেস্ট লেভেল-৪ এর জন্য করা হয়ে থাকে।